বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৪, ০৪:৩৪ পূর্বাহ্ন
শিরোনামঃ
ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবসে বঙ্গবন্ধুর প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন প্রধানমন্ত্রীর তৃতীয় ধাপে ১১২টি উপজেলার ভোটগ্রহণ ২৯ মে ঝালকাঠিতে ট্রাক, অটোরিকশা ও প্রাইভেট কারের ত্রিমুখী সংঘর্ষে ১৪ জন নিহত মধ্যপ্রাচ্যের অস্থিরতার প্রতি নজর রাখার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর মির্জাগঞ্জে কৃষি জমিতে সেচ দিতে গিয়ে যুবক ফিরলো লাশ হয়ে মির্জাগঞ্জে ইসি সচিব’র সাথে মতবিনিময় সভা পটুয়াখালীতে সাবেক ইউপি সদস্যের স্ত্রীর রহস্যজনক মৃত্যু তাড়াইলে জাতীয় উলামা মশায়েখ আইম্মা পরিষদের ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত ঈদ উপলক্ষে অসহায় শিশুদের মাঝে এসো গড়ি ফাউন্ডেশন’র পোশাক বিতরণ ঈদে নাড়ির টানে ঘড় মুখো মানুষের নিরাপদ যাত্রা নিশ্চিত করতে নিরলসভাবে কাজ করছে পুলিশ: গাইবান্ধা পুলিশ সুপার

জাতীয় নির্বাচন হেলাফেলার জিনিস নয় : সিইসি

নিজস্ব প্রতিবেদক:
  • আপলোডের সময় : শুক্রবার, ২২ জুলাই, ২০২২
  • ৬১৭০ বার পঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক:

প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কাজী হাবিবুল আউয়াল বলেছেন, জাতীয় নির্বাচনটা হেলাফেলার জিনিস নয়। জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মাধ্যমে সরকার গঠন হবে, রাষ্ট্রের সর্বোচ্চ প্রশাসনিক সংগঠন ক্যাবিনেট গঠন হবে।

আজ বৃহস্পতিবার নির্বাচন ভবনে বাংলাদেশ জাতীয় পার্টির সঙ্গে সংলাপে সিইসি এ কথা বলেন।

হাবিবুল আউয়াল বলেন, ‘নির্বাচনটা জনপ্রতিনিধিত্বমূলক এবং জনগণের সমর্থন নিয়ে সরকার গঠন হওয়া উচিত। এজন্য একটি অবাধ, নিরপেক্ষ নির্বাচন প্রয়োজন, যেখানে ভোটাররা নির্বিঘ্নে ভোট দিতে পারবে।’

‘নির্বাচনে সব দলকে আহ্বান করছি ও করে যাব। নির্বাচন যথাসময়ে অনুষ্ঠিত হবে’ উল্লেখ করে সিইসি বলেন, ‘আমরা যে দায়িত্ব আইন ও সংবিধানের অধীনে নিয়েছি, সেই দায়িত্ব অনুযায়ী আমাদের নির্বাচন করতে হবে। কোনো দল না এলে আমরা বাধ্য করতে পারব না। তবে, আমরা বারবার আপনাদের অংশগ্রহণ প্রত্যাশা করছি।’

সিইসি আরও বলেন, ‘জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আমরা সামর্থ্য অনুযায়ী প্রতিটি কেন্দ্রে সিসি ক্যামেরা বসানোর চেষ্টা করব। পেশিশক্তি যাতে নিয়ন্ত্রণ করতে পারি, সেজন্য আপনাদের সহযোগিতা চাইব।’

নির্বাচন সুষ্ঠু পরিচালনার বিষয়ে সিইনি বলেন, ‘কমিশন একা নির্বাচন করবে না। জেলা প্রশাসন, পুলিশ, বিজিবি, জেলা ম্যাজিস্ট্রেট এমনকি, সেনাবাহিনীরও অংশগ্রহণ প্রয়োজন হতে পারে। আমরা সেই অর্থেও কাজ করব। নির্বাচন সংক্রান্ত আইনে আমাদের বেশ খানিকটা ক্ষমতা দেওয়া হয়েছে। আমরা সেই ক্ষমতা প্রয়োগ করব, যেন সম্ভাব্য সহিংসতা বা পেশি শক্তির প্রয়োগ হ্রাস করতে পারি।’

‘ইভিএম নিয়ে যে সংশয় ও আস্থাহীনতা আছে, তা নিয়ে অবহিত আছি’ উল্লেখ করে হাবিবুল আউয়াল আরও বলেন, ‘আমরা অন্ধভাবে ইভিএম নিয়ে কোনো সিদ্ধান্ত নিইনি। তবে, এর যে কিছু ভালা দিক আছে, মন্দ দিক যা আছে, সেটাকে আমরা উড়িয়ে দিচ্ছি না। সেই সম্ভাব্যতা কতটা বস্তুনিষ্ঠ, তা পরীক্ষা করে দেখার চেষ্টা করছি।’

সংলাপে বাংলাদেশ জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. এম এ মুকিতের নেতৃত্বে দলটির ১২ সদস্যের প্রতিনিধি দল, চার নির্বাচন কমিশনার, ইসি সচিবসহ সংস্থাটির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

দয়া করে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর..