সোমবার, ২৭ মে ২০২৪, ০৩:৫২ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
তাড়াইলে ৪ গরু চোর গ্রেফতার, জব্দ গাড়িসহ ৬টি গরু পটুয়াখালীতে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী রেজাউল করিম সোয়েবের ইশতেহার ঘোষণা  রেড ক্রিসেন্টের প্রশ্নপত্র ফাঁসের ঘটনা সাজানো: কর্মকর্তাদের মাঝে চাপা ক্ষোভ ঘূর্ণিঝড় রেমাল মোকাবিলায় প্রস্তুতি, ফায়ার সার্ভিস, ছুটি বাতিল : মনিরটিং সেল গঠন এমপি আনার খুনের তদন্তে ভারত যাবে গোয়েন্দা পুলিশ কোন দলের নেতাকর্মীকে জেলে পাঠানোর এজেন্ডা আমাদের নেই: ওবায়দুল কাদের সাকিব নট আউট ‘৭০০’ সরকার সকল ধর্মের বিশ্বাসীদের নিয়ে দেশকে এগিয়ে নিতে চায় : প্রধানমন্ত্রী ঢাকাবাসীকে সুন্দর জীবন উপহার দিতে কাজ করছে সরকার : প্রধানমন্ত্রী ঘূর্ণিঝড় রেমালের মোকাবেলায় প্রস্তুত রয়েছে সরকার : মহিববুর রহমান

মুরাদনগরে বন্ধককৃত পটের মাটি চুরিতে বাঁধা দেওয়ায় বৃদ্ধাকে হত্যার অভিযোগ

রায়হান চৌধুরী (কুমিল্লা প্রতিনিধি):
  • আপলোডের সময় : বৃহস্পতিবার, ১৯ জানুয়ারী, ২০২৩
  • ৫৮২৮ বার পঠিত

কুমিল্লার মুরাদনগরে রাতে মাটি চুরি করে নিয়ে যাওয়ার সময় বাঁধা দেওয়ায় মাটি ব্যবসায়ীর আঘাতে জমির মালিক খোকন মিয়া (৬২) মৃত্যুর অভিযোগ উঠেছে । নিহত আব্দুল বারেক ওরফে খোকন মিয়া ১৪নং নবীপুর পূর্ব ইউনিয়নের গকুলনগর গ্রামের মৃত আব্দুর রহমান এর সন্তান। মাটি ব্যবসায়ী গিয়াস উদ্দিন (৪৭) একই এলাকার মৃত আবু তাহেরের ছেলে। বুধবার রাত ১০টায় গকুলনগর হাসান ব্রিকস’র বন্ধককৃত পটে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর মাটি ব্যবসায়ী গিয়াস ও তার ছেলে রনি (২২) পলাতক।

স্থানীয়রা জানান, গকুলনগর এলাকার হাসান ব্রিকসে খোকন মিয়ার ৩২ শতাংশ জমি বন্ধক ছিল। ব্রিকফিল্ডটি চলতি সিজনে বন্ধ হয়ে যাওয়ায় ফিল্ডের মালিক পট খালি করতে গিয়াসউদ্দিনের কাছে পটে বিছানো ইট বিক্রি করেন। গিয়াস পটের ইট খালি করার নামে রাতের আধারে ভেকু দিয়ে জমির এক ফুট গভীর গর্ত করে মাটি তুলে নিচ্ছিল। খবর পেয়ে জমির মালিক খোকন মিয়া ও তার ছেলে কাইয়ূম গিয়ে বাঁধা প্রদান করিলে গিয়াস উদ্দিন ও তার ছেলে রনি খোকন মিয়াকে এলোপাতাড়ি কিল ঘুষি লাথি মেরে মাটিতে ফেলে দেয়। আহত খোকন মিয়াকে স্থানীয়রা উদ্ধার করে কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

নিহতের ছেলে প্রত্যক্ষদর্শী কাইয়ূম বলেন, বুধবার রাতে আমাদের জমি থেকে ভেকু দিয়ে মাটি চুরির সময় আমি ও আমার বাবা বাঁধা দেই। তখন গিয়াস উদ্দিন ক্ষিপ্ত হয়ে আমাদের উপর আক্রমন করলে তাঁদের আঘাতে আমার আব্বার মৃত্যু হয়। মৃতদেহ কুমেক মর্গে আছে। আমি বাবা হত্যার সুষ্ঠ বিচার চাই। বাবার দাফন সম্পন্ন করে আমি নীজেই বাদি হয়ে হত্যাকারীদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হবে।

মুরাদনগর থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) কামরুজ্জামান তালুকদার বলেন, লাশ ময়নাতদন্তের জন্য কুমিল্লা কুমেক মর্গে পাঠানো হয়েছে। নিহতের পরিবার মামলা করলে নিতে প্রস্তুত আছি। বিষয়টি তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

দয়া করে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর..