মঙ্গলবার, ২৩ এপ্রিল ২০২৪, ০২:৫২ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
নাগেশ্বরীতে প্রাণী সম্পদ অফিসে টেকনিসিয়ান নিয়োগে অনিয়ম এডিসের লার্ভা পেলে জেল ও জরিমানা করা হবে: ডিএনসিসি মেয়র জলবায়ু অভিযোজনে সফলতার জন্য বিশ্বের ঐক্যবদ্ধ প্রয়াস জরুরি : পরিবেশমন্ত্রী কারিগরি বোর্ডের চেয়ারম্যানকে জিজ্ঞাসাবাদ করবে ডিবি আওয়ামী লীগের শান্তি ও উন্নয়ন সমাবেশ স্থগিত প্রধানমন্ত্রীর থাইল্যান্ড সফরকালে ৫টি দলিল স্বাক্ষর ও বহুমুখী সহযোগিতার সম্ভাবনা : পররাষ্ট্রমন্ত্রী জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবিলায় বাংলাদেশ জলবায়ু উন্নয়ন অংশীদারিত্ব গঠন: প্রধানমন্ত্রী যুদ্ধ ব্যয়ের অর্থ জলবায়ুর প্রভাব মোকাবেলায় ব্যবহার হলে বিশ্ব রক্ষা পেত: প্রধানমন্ত্রী কাতারের আমীরকে লাল গালিচা অভ্যর্থনা দেয়া হয় ঢাকা বিমানবন্দরে তাড়াইলে তীব্র তাপদাহে অতিষ্ঠ জনজীবন- হাসপাতালে বাড়ছে রোগী

ই-মেইল ফাঁসে ফেঁসে চরম বিতর্কে বরিস জনসন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
  • আপলোডের সময় : মঙ্গলবার, ১১ জানুয়ারী, ২০২২
  • ৫৯০৪ বার পঠিত

২০২০ সালের মে মাসের ঘটনা। ব্রিটেনজুড়ে তখন লকডাউন চলছিল। গণজমায়েত, পার্টি সবকিছুর ওপরই নিষেধাজ্ঞা জারি ছিল তখন। সেই সময় ব্রিটিশি প্রধানমন্ত্রী তার সরকারি বাসভবন ১০ নম্বর ডাউনিং স্ট্রিটে ৪০ জনকে নিয়ে গার্ডেন পার্টি করেছিলেন। বিষয়টি নিয়ে চরম বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছে।

ব্রডকস্টার আইটিভি জানিয়েছে, ইমেইলের মাধ্যমে আমন্ত্রণ জানানো হয় অতিথিদের। সেই ইমেইল তারা দেখেছে। ‘ব্রিং ইয়োর ওন অ্যালকোহল’ (নিজের মদ নিজে আনো) গার্ডেন পার্টির আয়োজন করেছিলেন জনসন।

সে সময় মাত্র দু’জন বাড়িতে মিলিত হতে পারতেন। পাব, রেস্তোরাঁ সব বন্ধ। তখন জনসন এই পার্টি করেন।
নিমন্ত্রিত একশ’ জনের বেশি

প্রধানমন্ত্রীর প্রিন্সিপাল প্রাইভেট সেক্রেটারি মার্টিন রেনল্ডস এই ইমেইল একশজনেরও বেশি কর্মীকে পাঠিয়েছিলেন। সেই ইমেইলে বলা হয়েছিল, “ভয়ঙ্কর ব্যস্ত সময়ের পর সুন্দর আবহাওয়ার সুযোগ নিন। আমরা সামাজিক দূরত্ব মেনে ১০ নম্বরের বাগানে সন্ধ্যায় সমবেত হব। দয়া করে ছয়টার সময় আসবেন এবং নিজের মদ নিজে নিয়ে আসবেন।”

আইটিভি জানিয়েছে, জনসন তার স্ত্রীসহ মোট ৪০ জন সেদিন পার্টি করেছিলেন।

লকডাউনের বিধিভঙ্গের অভিযোগ

জনসনের বিরুদ্ধে লকডাউনের বিধিভঙ্গের অভিযোগ নতুন নয়। ২০২০ সালে তিনি ১০ ডাউনিং স্ট্রিটে একাধিক পার্টি করেছেন বলে অভিযোগ। একজন উচ্চপদস্থ সরকারি কর্মকর্তা এরকম পাঁচটি পার্টির অভিযোগ নিয়ে তদন্ত করছেন।

জবাব দেননি

সোমবার বরিস জনসনকে প্রশ্ন করা হয়েছিল, তিনি ও তার স্ত্রী কি করোনা বিধিভঙ্গ করে পার্টি করেছিলেন? তার কোনও জবাব দেননি বরিস জনসন।

তবে বিরোধী দলগুলো বরিস জনসনের তীব্র সমালোচনা করেছে। বিরোধী লেবার পার্টি, স্কটিশ ন্যাশনাল পার্টি সকলেই বরিসের সমালোচনায় মুখর হয়েছে।

দয়া করে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর..